বুধবার ২৭শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ১১ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

সাতক্ষীরার মাটি মাল্টা চাষে আশীর্বাদ

Share on facebook
Share on twitter
Share on linkedin

অনলাইন ডেস্ক

 

কৃষি নির্ভর একটি জেলা সাতক্ষীরা। চিংড়ি ও মিষ্টির পাশাপাশি কুল, ওল, হলুদ এবং আমের জন্য সমৃদ্ধ এ জেলায় এখন মাল্টা চাষেও বেশ সুক্ষ্যাতি অর্জন করেছে। আম চাষের পর এবার মাল্টা চাষেও সফলতার মুখ দেখছেন সাতক্ষীরার দি হাইব্রীড নার্সারী মালিক নুরুল আমিন। আশাশুনি উপজেলার বাহদুরপুরে ২০ বিঘা জমিতে মাল্টা চাষ করে পেয়েছেন অভাবনীয় সাফল্য। তার দেখাদেখি সাতক্ষীরায় দিন দিন মাল্টা চাষে আগ্রহী হয়ে উঠছেন কৃষকরা। কৃষক নুরুল আমিন কৃষিতে বরাবরের মতোই সফল একজন চাষি হিসেবে দেশব্যাপী নাম কুড়িয়েছেন।

পুরাতন সাতক্ষীরা এলাকার বাসিন্দা নুরুল আমিন গত তিন যুগেরও বেশি সময় ধরে নিজেকে ব্যস্ত রেখেছেন কৃষি কাজের সাথে। ২০০৫ সালে সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া ও ২০১০ সালে বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত থেকে বৃক্ষরোপনে জাতীয় পুরষ্কার অর্জন করেন নুরুল আমিন। তার চাষ কৌশল দেখতে বিভিন্ন জায়গার সাধারণ কৃষক প্রতিনিয়তই ভিড় জমাচ্ছে মাল্টা বাগানে।
নুরুল আমিনের মাল্টা ক্ষেতে থোকায় থোকায় ঝুলছে চির সবুজ মাল্টা। বাম্পার ফলনও হয়েছে তার গাছে। সাধারণত দুই থেকে তিন বছরেই মাল্টা গাছে পরিপূর্ণ ফল আসে। নুরুল আমিন পাইকাড়ি দরে মাল্টা বিক্রয় করছেন ৭০ থেকে ৮০ টাকায়। বিঘা প্রতি লাখ টাকার মাল্টা বিক্রি করেছেন। তার বাগানের মাল্টার আকার এবং রঙ বেশ সুন্দর। স্বাদও চমৎকার। নুরুল-আমিনের এই সাফল্যে সাতক্ষীরার মাটিতে মাল্টা চাষে আশাবাদী হয়ে উঠেছেন কৃষি কর্মকর্তারা।

নুরল-আমিন জানান, আগামীতে আমের মত মাল্টা চাষেও সাতক্ষীরা সুনাম অর্জন করবে। তিনি মালটা চাষের প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ কৃষি অফিস ও ইউটিউব থেকে পেয়েছেন। যেকোনো ধরনের মাটিতেই মাল্টা চাষ করা সম্ভব। ৮-১০ ফুট দূরত্বে চারাগাছ রোপণ করতে হয়। অক্টোবর থেকে ডিসেম্বর মাসের মধ্যেই মাল্টা চারা রোপণের উপযুক্ত সময়। চারার দামও কম। মাত্র ৫০-১০০ টাকায় চারা পাওয়া যাচ্ছে। তিনি নিজেও চারা বিক্রি করছেন। মাল্টার পাশাপাশি বিদেশী কিছু ফলের চাষ ও চারা তৈরি শুরু করেছেন নুরুল আমিন। এর মধ্যে সূর্যডিম আম, পারসিমন, ডুরিয়ান, রামবুটান, এ্যাভো ক্যাডো সহ বিভিন্ন প্রজাতির ফলজ গাছ।

সাতক্ষীরা জেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর খামার বাড়ির উপ পরিচালক মো. নূরুল ইসলাম জানান, মাল্টা লাভজনক একটি ফসল। জেলার মাটি ও আবহাওয়া একটু লবনাক্ত হওয়াতে সাতক্ষীরা অঞ্চলের মাল্টা খুবই মিষ্ট। এর মধ্যে বারি মাল্টা-১ এর মিষ্টতা সবচেয়ে বেশি। সাতক্ষীরা জেলায় ৬১ হেক্টর জমিতে এবার মাল্টার আবাদ হয়েছে।

এই বিভাগের আরও খবর

তানোরে হ্যাট্রিকের আশা নিয়ে মাঠে নামছেন মেম্বার আব্দুল মালেক

  সাইদ সাজু, তানোর থেকেঃ   তানোরে এবার হ্যাট্রিকের আশা নিয়ে নির্বাচনী মাঠে নামছেন বাধাইড় ইউপির ১ নং ওয়ার্ড মেম্বার আব্দুল মালেক। বিনয়ী প্রকৃতির মানুষ

আরিয়ানের জামিন শুনানি আজ, টাকার বিনিময়ে ছেড়ে দেয়ার প্রস্তাব

অনলাইন ডেস্ক: প্রমোদতরীতে মাদককাণ্ডে গ্রেফতার শাহরুখপুত্র আরিয়ান খানের আজ মঙ্গলবার জামিন আবেদনের শুনানি মুম্বাই হাই কোর্টে। এ নিয়ে তৃতীয় বারের মত জামিনের আবেদন আরিয়ানের। এর

থামানো যাচ্ছে না পাকিস্তানকে

অনলাইন ডেস্ক: নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ১৩৫ রানের টার্গেট তাড়া করতে নেমে দলীয় ২৮ রানে ফেরেন অধিনায়ক বাবর আজম। ভারতের বিপক্ষে ৬৮ রানের অনবদ্য ইনিংস খেলা এ

আসছে মিশন এক্সট্রিম

অনলাইন ডেস্ক: অপেক্ষার পালা শেষ। আগামী ৩ ডিসেম্বর প্রেক্ষাগৃহে আসছে পুলিশি অ্যাকশন থ্রিলার সিনেমা “মিশন এক্সট্রিম”। গত ২৪ অক্টোবর রাজধানীর তেজগাও এ জাঁকজমকপূর্ণ অনুষ্ঠানের মাধ্যমে