বুধবার ২৮শে সেপ্টেম্বর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ ১৩ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বাঘায় ভেজাল গুড়ের দুটি কারখানায় র‌্যাবের অভিযান ঃ ৩ লক্ষ ৭০ হাজার টাকা জরিমানা ঃ ৮৫৫ কেজি গুড় ধ্বংস

নিউজটি শেয়ার করুন

বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি

 

রাজশাহীর বাঘায় চিনি, ডালডা, চুন, আটা ও কেমিক্যাল দিয়ে বানানো হতো ভেজাল গুড়। যা ‘খাটি’ বলে বিভিন্ন হাটে বাজারে বিক্রি করা হতো। আর ‘খাটি’ আখের গুড়ের নামে এসব খাচ্ছেন মানুষ।
র‌্যাব-৫ এর কম্পানি কমান্ডারের নেতৃত্বে ভেজাল গুড়ের কারখানায় অভিযান চালায়। এ সময় ৮৫৫ কেজি ভেজাল গুড় ও তৈরির উপকরণ ধ্বংস করে কারখানার মালিক সেকেন্দার আলীর ৩ লাখ ও দুলাল হোসেনের ৭০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

জানা গেছে, উপজেলার আড়ানী ইউনিয়নের পাঁচপাড়া গ্রামের মৃত নয়ন মন্ডলের ছেলে সেকেন্দার আলী ও মৃত আকুল মন্ডলের ছেলে দুলাল হোসেন দীর্ঘদিন থেকে আখের ভেজাল গুড় তৈরি করে আসছিলেন। চিনি, মোনালিসা, নানা রকম কেমিক্যাল, চুন, হাইড্রোজ, ফিটকিরি, ডালডা, আটা ব্যবহার করে এই ভেজাল গুড় তৈরি করছিলেন।
এমন সংবাদের ভিত্তিতে র‌্যাব-৫ এর কম্পানি কমান্ডারের নেতৃত্বে মঙ্গলবার (২০ সেপ্টেম্বর) দিবাগত রাতে এই দুটি কারখানায় অভিযান পরিচালনা করে সেকেন্দার আলীর কারখানায় ৫৫৫ কেজি এবং দুলাল হোসেনের কারখানায় ৩০০ কেজি ভেজাল গুড় জব্দ করে।

পরে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতরের রাজশাহী বিভাগীয় কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক হাসান-আল-মারুফ বুধবার (২১ সেপ্টেম্বর) সকাল ৯টার দিকে র‌্যাব-৫ এর সহায়তায় প্রথমে সেকেন্দার আলীর ৩ লক্ষ টাকা এবং পরে দুলাল হোসেনের ৭০ হাজার টাকা জরিমানা করেন। এ সময় ভেজাল গুড় ও তৈরির উপকরণ জনস্মুখে ধ্বংস করা হয়।
প্রতিকেজি ৮৫ টাকা হিসেবে ধ্বংস করা ভেজাল ৮৫৫ কেজি গুড়ের আনুমানিক বর্তমান বাজার মূল্য ৭২ হাজার ২৫০ টাকা বলে র‌্যাব-৫ এর অভিযানের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তা যুগান্তরকে এ বিষয়ে নিশ্চিত করেন।
উল্লেখ্য, এর আগে গত ৩০ আগষ্ট র‌্যাব-৫ এর সহযোগিতায় জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতরের রাজশাহী বিভাগীয় কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক ভেজাল গুড়ের কারখানার মালিক সেকেন্দার আলীর দেড় লাখ টাকা জরিমানা এবং ৭০০ কেজি ভেজাল গুড় ও তৈরির উপকরণ ধ্বংস করেন।
এ বিষয়ে জাতীয় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ অধিদফতরের রাজশাহী বিভাগীয় কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক হাসান-আল-মারুফ বলেন, চিনি দিয়ে গুড় তৈরির কারখানার মালিক সেকেন্দার আলী ও দুলাল হোসেন অধিক মুনাফা লাভের আশায় চিনি, চুন, ফিটকিরি, হাইড্রোজ ও কেমিক্যাল মিশিয়ে ভেজাল গুড় তৈরি করে হাট-বাজারে বিক্রি করে আসছে। সেই সাথে গুড়ের রং উজ্জ্বল করতে মেশানো হচ্ছে বিষাক্ত কেমিক্যাল। এমন অভিযোগের প্রেক্ষিতে বিশেষ অভিযান চালিয়ে গুড় ও তৈরির উপকরণ ধ্বংস এবং অর্থদন্ড করা হয়েছে। #

এই বিভাগের আরও খবর

নাচোলে সুবর্ণ জয়ন্তী ফুটবল টুর্নামেন্টে চ্যাম্পিয়ন ক্রিকেট একাডেমি

নিউজটি শেয়ার করুন

নিউজটি শেয়ার করুননাচোল থেকে শাকিল রেজাঃ   চাঁপাইনবাবগঞ্জের নাচোলে শ্যামলী সংঘ সুবর্ণ জয়ন্তী ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল খেলা ও পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। আজ মঙ্গলবার বিকেলে

বাঘায় সামাজিক সম্প্রীতি সমাবেশ অনুষ্ঠিত

নিউজটি শেয়ার করুন

নিউজটি শেয়ার করুনবাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি:   জনসচেতনমূলক কার্যক্রমের মাধ্যমে বিদ্যমান আন্তধর্মীয় সম্পর্ক ও সামাজিক বন্ধনকে সুসঙ্গত রাখাসহ অস¤াপ্রদায়িক চেতনাই ধর্মীয় ও সামাজিক বন্ধনকে এগিয়ে নিতে

সাফজয়ী নারী ফুটবলারদের সঙ্গে ভাবনার উচ্ছ্বাস

নিউজটি শেয়ার করুন

নিউজটি শেয়ার করুনঅনলাইন ডেস্ক   দেশের নারী ফুটবলাররা সম্প্রতি সাফ ফুটবল শিরোপা জয় করে জাতিকে বিশ্বের বুকে গর্বিত করেছেন। তাদের ঐতিহাসিক সাফল্যে বিশ্বজুড়ে বাঙালিরা উচ্ছ্বসিত।

পাকিস্তানি আর্মির বুলেট ও জিয়ার দুঃশাসন আওয়ামী লীগকে ঘরে তুলে দিতে পারেনি: এস এম কামাল হোসেন

নিউজটি শেয়ার করুন

নিউজটি শেয়ার করুনঅনলাইন ডেস্ক   বিএনপি নেতাদের উদ্দেশে আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এসএম কামাল হোসেন বলেছেন, আওয়ামী লীগকে ভয় দেখাবেন না। পাকিস্তানি আর্মির বুলেট ও

কেন ভারতে তৈরি হচ্ছে আইফোন-১৪?

নিউজটি শেয়ার করুন

নিউজটি শেয়ার করুনঅনলাইন ডেস্ক   ভারতে আইফোন-১৪ উৎপাদন শুরু করার কথা জানিয়েছে অ্যাপল। চীনের ওপর নির্ভরতা কমাতেই কোম্পানিটি এই উদ্যোগ নিয়েছে বলে জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম

ভোট ডাকাতি করতেই ইভিএম কেনার পাঁয়তারা : খন্দকার মোশাররফ

নিউজটি শেয়ার করুন

নিউজটি শেয়ার করুনঅনলাইন ডেস্ক   সরকার মেশিনে ভোট ডাকাতি করতেই ইলেক্ট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) কেনার পাঁয়তারা করছে বলে মন্তব্য করেছেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য ড.

%d bloggers like this: